All for Joomla The Word of Web Design
আন্তর্জাতিক

জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের জরুরী বৈঠকে তোপের মুখে পড়েছে যুক্তরাষ্ট্র

ট্রাম্পের ঘোষণায় দ্বিমত প্রকাশ করল জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ

৮ ডিসেম্বর ২০১৭ জেরুজালেমের বিষয়ে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের এক জরুরী বৈঠক হয় । ৬ ডিসেম্বর ২০১৭ তারিখে “জারুজালেম ইসরায়েলের রাজধানী” প্রেসিডেন্ট ট্রামের ওই ঘোষণার বিষয়ে বৈঠকে আলোচনা হয় । বৈঠকে উপস্থিত ছিল নিরপাত্তা পরিষদের সদস্যরাষ্ট্রের মধ্যে ব্রিটেন, ফ্রান্স, সুইডেন, বলিভিয়া, উরুগুয়ে, ইতালি, সেনেগাল ও মিশর ।

জরুরী বৈঠকে অংশ নেয়া দেশের প্রতিনিধীগণ আমেরিকার সিদ্ধান্তের সমালোচনা করেন । জেরুজালেম ইসরায়েলের রাজধানী আমেরিকার ওই সিদ্ধান্ত প্রত্যাখ্যানের দাবিতে তারা সকলে ঐক্যমত্য হন । তারা “দুই-রাষ্ট্র সমাধান” নীতি নিয়ে আলোচনার প্রতি জোর দেন । তবে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধী নিজ দেশের অবস্থান তুলে ধরেন এবং জাতিসংঘের বিরোধিতা করেন ।

বৈঠকের পর এখনো নিরাপত্তা পরিষদ নিয়মানুযায়ী জারুজালেম সম্পর্কে কোনো বক্তব্য বা সিদ্ধান্ত  দেয় নি ।

নিরপাত্তা পরিষদের বৈঠক চলাকালীন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের সিদ্ধান্ত প্রত্যাখ্যানে যেসব বক্তব্য উঠে এসেছে :

ফিলিস্তিনের রাষ্ট্রদূত: নিরাপত্তা পরিষদে দেয়া বক্তব্যে রিয়াদ মানসুর যুক্তরাষ্ট্রকে তাদের সিদ্ধান্ত থেকে ফিরে আসার আহবান জানান এবং নিরাপত্তা পরিষদের কাছে মার্কিন প্রেসিডেন্টের ঘোষণা প্রত্যাখ্যানের দাবি করেন । উপস্থিত দেশগুলোর প্রতি এক পক্ষীয় কোনো সিদ্ধান্তের স্বীকৃতি না দেয়ার ব্যাপারে আহবান জানান । ইসরায়েলিদের ফিলিস্তিনি ভূমি দখলের বিষয়ে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন ।

জাতিসংঘের নিয়োজিত মধ্যপ্রাচ্যে শান্তি প্রতিষ্ঠার সংঘটক: নিকোলায় ম্যালেদনেভ বলেন, “দুই-রাষ্ট্র সমাধান” নীতি ছাড়া বিকল্প কোনো পথ নেই । ভিডিও কনফারেন্সে তিনি সতর্ক করেন, এক পক্ষীয় কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে ভয়ানক পরিস্থিতি সৃষ্টি হবে, যা আমাদেরকে শান্তি প্রতিষ্ঠা থেকে বহুদূরে নিয়ে যাবে । সকলকে তিনি শান্তিপূর্ণ আলোচনার আহবান জানান ।

সুইডেনের রাষ্ট্রদূত: উলুফ সাকুফ বলেন, জেরুজালেম ইসরায়েলের রাজধানী ওয়াশিংটনের ওই স্বীকৃতি নিরাপত্তা পরিষদের প্রস্তাব এবং  আন্তর্জাতিক আইন বিরোধী । আমরা ওই ঘোষণার চরম প্রতিবাদ জানাই । এই সংঘাত যেন ধর্মীয় সংঘাতে পরিণত না হয় সে ব্যাপারে তিনি সতর্ক করেন ।

ব্রিটেনের রাষ্ট্রদূত: কারেন পিয়ারস বলেন, জেরুজালেম শহরে ফিলিস্তিনি এবং ইসরায়েলি উভয় জাতির অংশ রয়েছে । এ শহরটি উভয় দেশের রাজধানী । তার দেশ মার্কিন প্রেসিডেন্টের ঘোষণাকে প্রত্যাখ্যান করেছে ।

ফ্রান্সের প্রতিনিধী: ফ্রান্সিও দিলাত্তর বলেন, ওই অঞ্চলে শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্যে জারেজালেমে অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে সীমানা নির্ধারণ করা জরুরী । ৬৭ বছর পর উত্তর জেরুজালেমকে মিলিয়ে দেয়ার ব্যাপারে প্যারিসের স্বীকৃতি না দেয়ার বিষয়ে জোর দেন ।

মিশর প্রতিনিধী: আমর আবুল আতা বলেন, জেরুজালেম দখলকৃত শহরের মত হতে পারে না । আলোচনার মাধ্যমে অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে বিভাজন হতে হবে । তিনি বলেন, মার্কিন প্রেসিডেন্টের সিদ্ধান্তে আন্তর্জাতিক আইন লঙ্ঘণ হয়েছে ।

রাশিয়ার রাষ্ট্রদূত: ভ্যাসিলি নিবেঞ্জায় তার বক্তব্যে বলেন, “দুই-রাষ্ট্র সমাধান” নীতি ছাড়া বিকল্প পথ নেই ।

বলিভিয়ার প্রতিনিধী: চাশা সুলিজ বলেন, জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের স্বীকৃতি আন্তর্জাতিক আইন এবং জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের সিদ্ধান্তকে চরমভাবে আঘাত করেছে । এই আইন লঙ্ঘণের প্রতিবাদে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে নিরাপত্তা পরিষদকে আহবান জানান ।

ইউরোপ ইউনিয়ন: জাতিসংঘে ইউরোপ ইউনিয়নভুক্ত পাঁচটি দেশ (ব্রিটেন, ফ্রান্স, জার্মানি, সুইডেন, ইতালি) এর প্রতিনিধীগণ বলেন, মার্কিন প্রেসিডেন্টের সিদ্ধান্ত জাতিসংঘের প্রস্তাবের  সাথে সামঞ্জস্য নয় এবং মধ্যপ্রাচ্যে শান্তি প্রতিষ্ঠার সহায়ক নয় । তারা বলেন, জেরুজালেমর বিষয়ে ফিলিস্তিনি এবং ইসরায়েলিদের মাঝে আলোচনার মাধ্যমে সিদ্ধান্ত নেয়া জরুরী ।

যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত: নিকি হ্যালি নিরাপত্তা পরিষদের জরুরী বৈঠকে বলেন,তার দেশ জারুজালেমের সীমানার বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নেয় নি । ওই ঘোষণা মধ্যপ্রাচ্যে শান্তি প্রক্রিয়া জোরদার করবে । তার দেশ “দুই- রাষ্ট্র সমাধান” নীতি সমর্থন করবে যদি তারা উভয় পক্ষ এ ব্যাপারে সম্মত হয় । আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলো ইসরায়েলের বিপক্ষে স্পষ্ট শত্রুতা প্রকাশ করছে বলে তিনি জোর দাবি করেন । তাদের বিরুদ্ধে ফিলিস্তিন এবং ইসরায়েলের মাঝে শান্তি প্রক্রিয়া নষ্ট করার অভিযোগ আরোপ করেন ।

সূত্র: আল-জাজিরা

৪৬ Comments

Leave a Comment

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password

শিরোনাম:
  ❖   কাল থেকে খুলে দেওয়া হচ্ছে আরব আমিরাতের মসজিদ   ❖   এডিআইও আবুধাবিতে স্টার্টআপের তহবিলের প্রবেশাধিকার বাড়ানোর জন্য শোরুক পার্টনার্স বেদায়া তহবিলে বিনিয়োগ করেছে   ❖   বাইতুল মোকাররমের খতিব হতে পারেন মাওলানা হাসান জামিল সাহেব!   ❖   ভারতীয় একজন কিডনী ব্যর্থতায় আক্রান্ত শিক্ষার্থীকে উদ্দেশ্যে করে বলেন, তুমি নিরাপদ হাতে রয়েছ   ❖   উচ্চ আদালতের স্থিতিবস্থা জারির পরও ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে রাজধানীর একটি মসজিদ   ❖   করোনাকালে ক্বওমী মাদরাসাগুলোর ১২ চ্যালেঞ্জ   ❖   চাকরিচ্যুৎ সেই ইমামকে স্বপদে বহাল করতে লিগ্যাল নোটিস   ❖   আজারবাইজানকে ১১ টন চিকিত্সা সহায়তা পাঠিয়েছে আমিরাত   ❖   রাতে নৌকার ছাদে জানাজা পড়ে লাশ ফেলা হতো সাগরে : খোদেজা বেগমের দুঃসাহসিক সমুদ্রযাত্রা   ❖   স্বেচ্ছাচার, স্বজনপ্রীতি ও স্বৈরাচার