All for Joomla The Word of Web Design
অন্যান্য

স্বপ্নের দেওবন্দ

আশরাফ আমীন
অতিথি লেখক
শিক্ষার্থী, দারুল উলূম দেওবন্দ, ভারত।

দেওবন্দে থেকে লিখছি। দারুল উলূম দেওবন্দ। পৃথিবী বিখ্যাত ইসলামি বিদ্যানিকেতন। খোশবুভরা হাজার ফুলের এটি সেই ফুলবাগান। ভারতের উত্তরপ্রদেশের সাহারানপুর জেলায় এর অবস্থান।

শৈশবেই এখানে পড়াশোনা করার ইচ্ছে ছিল। প্রবল ইচ্ছে। যাকে বলে অদম্য স্পৃহা। কিন্তু চতুর্ভুজি কাঁটাতার আমাকে সে সময় আসতে দেয়নি। দুরন্ত কৈশোর পেরিয়ে যখন আমি যৌবনের ঊষালগ্নে, তখন পড়াশোনার শেষ দুটি বছরের জন্য চলে আসি স্বপ্নের দেওবন্দে।

দারুল উলূম দেওবন্দ ১৮৬৬ ইংরেজি সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। দুনিয়াজুড়ে পতনোন্মুখ ইসলামের পুনর্জাগরণ এবং ভারত স্বাধীনতার লক্ষ্যে ব্রিটিশবিরোধী মুসলিম সিপাহসালার ইমাম কাসেম নানুতুবী রহ. এ দারুল উলূমের গোড়াপত্তন করেন। মাদরাসা প্রতিষ্ঠায় হযরত নানুতুবীর সাথে ভারতবিখ্যাত আরো পাঁচজন বুজুর্গ তাঁর সহযোগী এবং সমব্যথী ছিলেন।

দারুল উলূম দেওবন্দ কোনো গতানুগতিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান নয়। এটি বিশ্বের বিস্ময়। পৃথিবীজুড়েই এর কর্ম ও কীর্তির স্বাতন্ত্র্য অবস্থান বিদ্যমান। ভুললে চলবে না, ভারত স্বাধীনতায়ও রয়েছে যে এর বীরত্ব ও শৌর্যের ইতিহাস। এর অমূল্য অবদান। এই দেওবন্দ পৃথিবীতে জন্ম দিয়েছে হাজারো সমাজসংস্কারক। মানবতার সেবায় নিবেদিতপ্রাণ দক্ষ জনবল। জন্ম দিয়েছে অগণিত বিশ্বখ্যাত আহলে ইলম এবং আহলুল্লাহ। দেশ থেকে দেশান্তরে, পৃথিবীর নানাপ্রান্তে ইসলামের সুশীতল ছায়া সম্প্রসারিত করছে এই দেওবন্দ তার প্রতিষ্ঠাকাল থেকেই।

দারুল উলূম দেওবন্দের ভর্তিপরীক্ষা শুরু হয় প্রতি রমজানের দশদিন পর। আমরা দু’ভাই রমজানের শুরুতেই চলে আসি। সময়টা তখন ২০১৬-এর মাঝামাঝি। দেওবন্দ বলে কথা! প্রচুর প্রস্তুতি নিতে হবে। ভর্তি পরীক্ষা দিতে হবে। দেওবন্দ এসে দেখি, পরীক্ষা তো নয়, নিতে হবে রীতিমত যুদ্ধের প্রস্তুতি! আমি পরীক্ষা দেব দাওরায়ে হাদীসে ভর্তির জন্য। এই ক্লাসে ছাত্র নেবে চারশো’ বা এর আশপাশ। পরীক্ষার্থীর সংখ্যা চার হাজার! লড়তে হবে বিভিন্ন দেশের মেধাবীদের সাথে!

ভয়-আশঙ্কা ও ভর্তি হওয়ার তীব্র আকাঙ্ক্ষা, দু’য়ের মাঝে আমরা দু’ভাই। অনেক দু‘আ, মোনাজাতে কান্নাকাটি– এখানে পড়াশোনার ইচ্ছায় ভর্তি হওয়ার জন্য আজীব দৃশ্য এখানকার পরীক্ষার্থীদের। আমরাও তাদের সাথী। প্রতিটি সন্ধ্যায় ইফতারের আগের মোনাজাতে এখানে বুকভাঙ্গা কান্নার বাঁধভাঙা রূপ। রোনাজারির অশ্রুবিধৌত চেহারা সেহরির সময়েও সবার। তখন, সেই প্রথম দেওবন্দের এমন দৃশ্য দেখে যে ভাবাবেগ আমাদের হয়েছে ভাষায় তা ব্যক্ত করার মতো নয়। হৃদয়-মনেই অনুভব করা যায় শুধু।

পরীক্ষা এবং পরীক্ষার আগের দিনগুলোর প্রতিটি মিনিটের হিসেব হত। সময়ের ভগ্নাংশগুলো বড় আদরের মনে হত। কোনদিন মনে হয়নি আজ রোজা। দিল-দেমাগ, মন-মননে তখন শুধু কিতাবের ইবারত এবং তার বিশ্লেষণ অধ্যয়ন, কেবল পরীক্ষার প্রস্তুতি। ঐ দিনগুলোর কথা খুব মনে পড়ে আজ। প্রতিটি দিন ছিল আমার কাছে ইতিহাসের নতুন অধ্যায়, তখন আমার জীবনের। এতো পড়া আর কখনো পড়িনি। এতো চেষ্টা-মেহনত আর কখনো করিনি। এমন যদি সারাজীবন চালিয়ে যেতাম, চালিয়ে যেতে পারতাম, আমি অনেক জ্ঞানী হতাম। এমন যদি সারা জীবন কাঁদতে থাকতাম, কাঁদতে থাকতে পারতাম, আমি অনেক গুণী হতাম।

এরপর একদিন। পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশের এ’লান-বোর্ডে হুমড়ি খাওয়া আমার চোখ। আশা ও আশঙ্কায় ভরা বুক। কিন্তু, আলহামদু লিল্লাহ! বড় মেহেরবান আমার রব, আমার প্রতিপালক। আমার ডাক তিনি শুনেছেন। আমাকে কবুল করেছেন। তারপর দারুল উলূমের ছাত্তা মসজিদে একদিকে মিষ্টির ধুম, অন্যদিকে কান্নার রোল! সে দৃশ্য আজও ভুলিনি। ভোলার নয়।

অপেক্ষার প্রহর গুণতে থাকা আমার আব্বুকে মোবাইল করলাম। সিলেটে। কথা বললাম আব্বু এবং আমার পরম মমতাময়ী মায়ের সাথে। দু’জনেই খুশিতে খুব কাঁদলেন! যে খুশিতে কান্না আসে, সে খুশি অন্যরকম। সত্যি, অন্যরকম। হয়তো সে খুশির আমেজ শিহরিত করে শরীরের প্রতিটি লোম, নব-গতির সঞ্চালন করে রক্তের প্রতিটি বিন্দুতে, শিরা-উপশিরায়। আর আমার খুশি? সে তো জীবনের মহা-স্বপ্নের সফলতার! জীবনে এর চেয়েও বেশি আনন্দ আমি আর পাইনি।

দেখতে দেখতে আজ দু’বছর। পড়াশোনার প্রায় শেষ পর্যায়ে আমি। কিছুদিন পর বিদায় নিতে হবে। ফিরে যেতে হবে দেশে। এখান থেকে, যেখানে আমার জীবনের দু’বছরের প্রতিটি কদম পেয়েছে সত্যের সন্ধান, ভাল লাগার আবেশ বা আমি পেয়েছি হৃদয়ের খোরাক। হায়! যদি দেওবন্দ হতো আমার দেশ! যদি হতো এক দেওবন্দ পুরো বাংলাদেশ!…

 

মাই নিউজ/মাহদী

২২৫ Comments

Leave a Comment

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password

শিরোনাম:
  ❖   আরব আমিরাতে আজমানে আগামীকাল হতে সিনেমা, জিম, সেলুন ও যা যা খোলা হবে !   ❖   রাস্তার ছেলে   ❖   সাধারণ রোগীরা কি চিকিৎসা পাচ্ছে?   ❖   বাজেট দিয়ে কী হবে?   ❖   তুরষ্ক পাঠ্যবইয়ে জিহাদ ঢুকিয়েছে, বের করেছে বিবর্তনবাদ   ❖   আরব আমিরাতের করোনা দুর্যোগ মোকাবেলায় ভাইস প্রেসিডেন্টের অনলাইন বৈঠক !   ❖   চার্জ ফ্রি রেমিট্যান্স প্রেরণ সুবিধা চালু করল ব্যাংক এশিয়া   ❖   তিনি কত দয়ালু এবং ক্ষমাশীল   ❖   খিদমাহ ফাউন্ডেশনের চান্দিনায় ইফতার ও খাদ্য সামগ্রী বিতরণ   ❖   সম্পত্তির লোভে বাবাকে পিটিয়ে রক্তাক্ত