All for Joomla The Word of Web Design
উপন্যাস

ধারাবাহিক মনস্তাত্ত্বিক উপন্যাস

ফ্লেউর ডে লিস (পর্ব : ৭)

মাসউদ আহমাদ
(তরুণ লেখক)

প্রতি বস্তুর প্রভাব রয়েছে। মানুষের প্রতিটি চিন্তার প্রভাবও রয়েছে। আমাদের প্রতিটি আচরণ প্রভাব ফেলে। পৃথিবীর ওপর প্রভাব রয়েছে প্রতিটি কাহিনির। ফেলে আসা দিন ভবিষ্যতের কথাও বলে। আজকের সময় আগামীদিনের ধারণা দেয়।

চুম্বকের সবদিকেই আকর্ষণীয় বল, কিন্তু আমি কীভাবে দাঁড়িয়ে আছি তার ওপর নির্ভর করবে আমাকে টেনে নেওয়া হবে নাকি দূরে ঠেলা হবে। দিনগুলো, এগুলোও চুম্বকের মতো। আমার অবস্থানই নির্ধারণ করে দেবে জীবন কেমন কেটেছিল ও কাটবে।

পৃথিবী যখন ভোঁ ভোঁ করে ঘুরছে, পিথাগোরাসের মতে আমরা অভ্যস্ত হয়ে ভুলে যাই কোনো ঘূর্ণন শব্দের কথা, দেখতে পাই ঘূর্ণায়মান সবকিছুর স্থিরতা। মেঘের ভেসে চলা দেখে যাই, কোনো চক্রের কথা ভাবি না। বাতাসের স্থিরতায় অভ্যস্ত হয়ে অনুভব করি, বাতাস চঞ্চল।

প্রতি ভোরে সূর্য থেকে ভেসে আসা আলোর মতো আমার ভাইয়ের হাসিটুকু মনকে প্রফুল্ল করে, সুন্দর জীবনের অনুভূতি কিছু নতুন ভালোলাগা আনে ও বাঁচার উৎসাহ জাগায়। কিছু ফুলের স্নিগ্ধতা ও সুবাসে হৃদয়ের গভীরে ভালোবাসা ছড়ায়, মানবজগতে কিছু অবদান রেখে যাওয়ার প্রেরণা পাই।

চুপচাপ গল্প শুনে যাওয়া গল্পকথকের মস্তিষ্ককে উর্বর হতে সাহায্য করে।একসাথে দূর-পথ চলার ক্লান্তি থাকে না।

‘…তাদের নাম জানি না। তবে তারা ছিল ভান্ডালুসিয়ার কোনো দুই শাসক পরিবারের সন্তান। সেই সময়টাতে থিউডোসিয়াসের আবির্ভাব ঘটেনি।

‘ছেলেটাকে একা পাঠানো হয়েছিল মেয়েটাকে নিয়ে যাওয়ার জন্য।…’

‘তাদের নাম দিয়ে দাও। লুইস ও আকুনা হতে পারে।’

‘ওকে। লুইসকে পাঠানো হয়েছিল আকুনাকে নিয়ে যেতে। আকুনা ছিল লুইসের বড় ভাই সেনাপতি রামিরেজের বাগদত্তা। পুব অঞ্চলের গোথ সম্প্রদায়ের হাতে বন্দি ছিল সে। আর লুইস একমাত্র ব্যক্তি ছিল যে আকুনাকে উদ্ধার করতে পারে।

‘সেবার দেড় মাসের পথ পাড়ি দিতে হয় লুইসের। লুইস ভেবে পাচ্ছিল না তাকে কেন এই কাজে উপযুক্ত ভাবা হলো। সে এ-ও জানত না, যুদ্ধের অভিজ্ঞতা না থাকা সত্ত্বেও তার ভাই কেন তাকে পাঠালো।

‘আকুনা রাভিরেজের পথ চেয়ে ছিল। বোকাসোকা লুইসের কথা ভাবতেই পারেনি সে। ফেরার সময় এই পথেই তারা একে অপরের প্রতি ইয়ে অনুভব করে৷…’

‘বুঝি নাই!’

‘তারা পরস্পরকে ভালোবাসে।’

‘এই পথে?’

‘হ্যাঁ! কোনো সমস্যা?’

‘মানে, এই পথেই কেন!’

‘চুপ। আমি বলছি। আকুনা বুঝতে পারে, যুদ্ধই সবকিছু নয়। যুদ্ধের সক্ষমতাই উল্লেখের মতো একমাত্র বিষয় নয়।

‘লুইস ছিল একমাত্র ব্যক্তি, যার যুদ্ধের অভিজ্ঞতা মোটেই ছিল না। সেই সমাজে এটা স্বাভাবিক ছিল না। সে দিনরাত উদাসভাবে কাটাত। তার কোনোকিছু নিয়েই কোনো চিন্তা ছিল না। কখনো সেভিলের দূর্গের দেয়ালে ছবি আঁকত, কবিতা লিখত। ছোটদের গল্প শোনাত। বুদ্ধিমান রাভিরেজ তাকেই পাঠিয়েছিল, যাতে সে কোনো গল্প ফেঁদে কুসংস্কারাচ্ছন্ন গোথ সম্প্রদায়ের লোকদের ভেতর ভয় ঢুকিয়ে দিতে পারে। আর লুইস সফল হয়েছিল।

‘প্রতিটি বিষয়ের প্রভাব রয়েছে। একটি বিশ্ব চলার জন্য কত বিশ্বের সৃষ্টি হয়েছে। একটি পৃথিবীর প্রয়োজনেই কোটি গ্রহ-নক্ষত্র। অতচ আমাদের এ সবকিছুই অপ্রয়োজনীয় মনে হতে পারে।

‘সমাজের ধনীরা বিক্ষুককে বোঝা ভাবতে পারে। কৃষকেরা সাহেবদের পরগাছা ভাবতে পারে। কিন্তু সবকিছুর জন্য সবকিছুর প্রয়োজন ছিল এটা ঐতিহাসিকের বক্তব্য হওয়ার মতো। একটি সমাজের অস্তিত্বের জন্য, যা-কিছুর অস্তিত্ব সমাজেরই অংশ হওয়ার সেগুলোকে সমাজে অধিকার প্রদান করতে হবে।

‘সারাপথে একটি কথাও বলেনি লুইস। আকুনা নিজে থেকেই বলে গেছে, কীভাবে তাকে সেভিল থেকে অপহরণ করা হয়েছিল, কীভাবে এখানে দিন পার করতে হয়েছে। সূর্যোদয়ের সকালে কীভাবে ঘুম ভেঙে যেত। কীভাবে তাকে খাবার পরিবেশন করা হতো। কীভাবে তাকে সহ্য করতে হতো তাকে অপহরণকারী গোত্রপ্রধানের ছেলের বিয়ের স্বপ্ন।

‘হ্যাঁ, সেই যুগেও বিয়ের বিষয় ছিল। সেই তখনও বিয়ে ছিল সমাজের ভারসাম্যের জন্য অতি প্রয়োজনীয় নীতি আর এখনো।

‘পাহাড়-জঙ্গল পেরিয়ে জীবন হাতে নিয়ে সেভিলে পৌঁছা পর্যন্ত তটস্থ হয়ে থাকতে হয়েছিল আকুনার এই লুইসকে। লুইস তার ভাইয়ের হাতে আকুনাকে তুলে দিয়ে হারিয়ে গিয়েছিল। জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত লুইসকে দেখতে পায়নি আকুনা। হৃদয়ভাঙা আকুনার সন্তানেরা বড় হয়েছে স্বামী রাভিরেজের গৃহে। আকুনার মুখে শোনা গল্পে, তার লিখে যাওয়া কবিতাগুলোতে লুইসের নাম কিংবদন্তির অংশ হয়। পরবর্তী সময়ে ধারণা করা হয়েছিল লুইস নিজের জীবনের পরিবর্তে আকুনাকে চেয়েছিল।’… (চলবে) ●

মাই নিউজ/মাহদী

০ Comments

Leave a Comment

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password

শিরোনাম:
  ❖   এবার হুয়াওয়েকে নিষিদ্ধ করল যুক্তরাজ্য   ❖   রিজেন্টর চেয়ারম্যান সাহেদ গ্রেফতার   ❖   কাল থেকে খুলে দেওয়া হচ্ছে আরব আমিরাতের মসজিদ   ❖   এডিআইও আবুধাবিতে স্টার্টআপের তহবিলের প্রবেশাধিকার বাড়ানোর জন্য শোরুক পার্টনার্স বেদায়া তহবিলে বিনিয়োগ করেছে   ❖   বাইতুল মোকাররমের খতিব হতে পারেন মাওলানা হাসান জামিল সাহেব!   ❖   ভারতীয় একজন কিডনী ব্যর্থতায় আক্রান্ত শিক্ষার্থীকে উদ্দেশ্যে করে বলেন, তুমি নিরাপদ হাতে রয়েছ   ❖   উচ্চ আদালতের স্থিতিবস্থা জারির পরও ভেঙ্গে ফেলা হচ্ছে রাজধানীর একটি মসজিদ   ❖   করোনাকালে ক্বওমী মাদরাসাগুলোর ১২ চ্যালেঞ্জ   ❖   চাকরিচ্যুৎ সেই ইমামকে স্বপদে বহাল করতে লিগ্যাল নোটিস   ❖   আজারবাইজানকে ১১ টন চিকিত্সা সহায়তা পাঠিয়েছে আমিরাত